ব্লগ

ক্রিকেট হাইলাইটস, ০৮ এবং ০৯ সেপ্টেম্বর: সিপিএল ২০২১ (ম্যাচ ২১ এবং ২২), বাংলাদেশ বনাম নিউজিল্যান্ড (৪র্থ টি20)

সেন্ট কিটস অ্যান্ড নেভিস প্যাট্রিয়টস এবং জ্যামাইকা তালাওয়াসের মধ্যে সিপিএল ২০২১ এর ২১ তম ম্যাচ, গায়ানা অ্যামাজন ওয়ারিয়র্স এবং সেন্ট লুসিয়া কিংসের মধ্যে সিপিএল ২০২১ এর ২২ তম ম্যাচ এবং বাংলাদেশ ও নিউজিল্যান্ডের মধ্যকার ৫ ম্যাচ সিরিজের চতুর্থ টি২০ গতকাল এবং আজ সকালে মাঠে গড়িয়েছে। ম্যাচের উত্তেজনাপূর্ণ ঘটনাগুলো সম্পর্কে জানতে নিবন্ধনটি পড়া চালিয়ে যান।

সিপিএল ২০২১ ম্যাচ ২১ (সেন্ট কিটস অ্যান্ড নেভিস প্যাট্রিয়টস বনাম জ্যামাইকা তালাওয়াস)

সিপিএল এর ২১তম ম্যাচে সেন্ট কিটস অ্যান্ড নেভিস প্যাট্রিয়টসের বিপক্ষে জ্যামাইকা তালাওয়াস ২২ রানে জয়ী হয়েছে। টসে হেরে প্রথমে ব্যাটিং করতে নেমে তালাওয়াস নির্ধারিত ২০ ওভারে ৮ উইকেট হারিয়ে ১৬৯ রানের চ্যালেঞ্জিং স্কোর সংগ্রহ করে।

দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৩৩ বলে ৪৩ রানের ইনিংস খেলেন শামার্হ ব্রুকস। এছাড়া অধিনায়ক রোভম্যান পাওয়েল ৩৭ ও আন্দ্রে রাসেল ২৮ রান করেন। প্যাট্রিয়টসের হয়ে ডমিনিক ড্রেক্স, ফাওয়াদ আহমেদ ও জন-রাশ জাগেসার সর্বাধিক ২টি করে উইকেট তুলে নেন। 

১৭০ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে, তালাওয়াসের বোলারদের বোলিং তোপে শুরু থেকেই চাপে পড়ে যায় প্যাট্রিয়টস। যার ফলে, পাওয়ার প্লের ৬ ওভারে ২ উইকেট হারিয়ে মাত্র ৩৪ রান তুলতে পারে তারা। শেষে ২০ ওভারে ৮ উইকেট হারিয়ে ১৪৭ রান তুলতেই শেষ হয়ে যায় প্যাট্রিয়টসের ইনিংস। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ ৩৪ করেন ডেভন থমাস। তালাওয়াসের হয়ে মিগেল প্রিটোরিয়াস সর্বাধিক ৩টি উইকেট শিকার করেন। এছাড়া বীরস্যামি পারমাউল ২টি উইকেট তুলে নেন।

এই ম্যাচে জয়ী হয়ে পয়েন্ট টেবিলের ৫ম স্থানে অবস্থান করছে তালাওয়াস এবং পরাজিত হয়ে প্যাট্রিয়টস এখনও ১ম স্থানে রয়েছে। 

স্কোরবোর্ড:
জ্যামাইকা তালাওয়াস – ১৬৯/৮ (২০.০)
সেন্ট কিটস অ্যান্ড নেভিস প্যাট্রিয়টস – ১৪৭/৮ (২০.০)
ফলাফল – জ্যামাইকা তালাওয়াস ২২ রানে জয়ী
প্লেয়ার অফ দ্য ম্যাচ – আন্দ্রে রাসেল


সিপিএল ২০২১ ম্যাচ ২২ (গায়ানা অ্যামাজন ওয়ারিয়র্স বনাম সেন্ট লুসিয়া কিংস)

সিপিএল এর ২২তম ম্যাচে গায়ানা অ্যামাজন ওয়ারিয়র্স সেন্ট লুসিয়া কিংসের বিপক্ষে ১৭ রানে জয়ী হয়েছে। টসে জিতে প্রথমে ব্যাটিং করতে নেমে ব্র্যান্ডন কিং এর দুর্দান্ত ইনিংসের সৌজন্যে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৬ উইকেট হারিয়ে ১৫১ রান তুলতে সমর্থ হয় ওয়ারিয়র্স। ৮ চার ও ৩ ছক্কায়, ৫৭ বলে ৭৭ রানের চমৎকার এক ইনিংস খেলেন কিং। কিংসের হয়ে জেভার রয়্যাল ও ওহাব রিয়াজ সর্বাধিক ২টি করে উইকেট তুলে নেন।

১৫২ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে ৭ ওভারে ৪৩ রান তুলতে ৩ উইকেট হারিয়ে চাপে পড়ে যায় কিংস। এরপর রোস্টন চেজ (৩৩ বলে ৪০) ও টিম ডেভিড (৪২ বলে ৪৭) চেষ্টা করলেও ওয়ারিয়র্সের বোলারদের বোলিং তোপে শেষ পর্যন্ত আর রানের গতি তরান্বিত করতে পারেনি। ফলে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৬ উইকেটে ১৩৪ রান তুলতেই গুটিয়ে যায় কিংস। ওয়ারিয়র্সের হয়ে গুদকেশ মতি এবং ওডিয়ান স্মিথ সর্বোচ্চ ২টি করে উইকেট শিকার করেন। 

এই ম্যাচে জয়ী হয়ে পয়েন্ট টেবিলের ৪র্থ স্থানে রয়েছে ওয়ারিয়র্স এবং পরাজিত হয়ে কিংস পয়েন্ট টেবিলের ৩য় স্থানে অবস্থান করছে। 

স্কোরবোর্ড:
গায়ানা অ্যামাজন ওয়ারিয়র্স – ১৫১/৬ (২০.০)
সেন্ট লুসিয়া কিংস – ১৩৪/৬ (২০.০)
ফলাফল – গায়ানা অ্যামাজন ওয়ারিয়র্স ১৭ রানে জয়ী
প্লেয়ার অফ দ্য ম্যাচ – গুদকেশ মতি


বাংলাদেশ বনাম নিউজিল্যান্ড (৪র্থ – টি20)

বুধবার শেরে বাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ৬ উইকেটে জয়ী হয়ে পাঁচ ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজে চতুর্থ ম্যাচেই সিরিজ জয় নিশ্চিত করেছে বাংলাদেশ। সেইসাথে প্রথমবারের মত কিউদের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি ফরমেটে সিরিজ জয়ের গৌরব অর্জন করল টাইগাররা।

টসে জিতে প্রথমে ব্যাটিং করতে নেমে বাংলাদেশী বোলারদের বোলিং তোপে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৯৩ রান তুলতেই অল-আউট হয়ে যায় নিউজিল্যান্ড। দলের পক্ষে উইল ইয়াং সর্বোচ্চ ৪৬ রান করেন। টাইগারদের হয়ে মোস্তাফিজুর রহমান ও নাসুম আহমেদ সর্বাধিক ৪টি করে উইকেট শিকার করেন। এছাড়া মেহেদী হাসান ও মোহাম্মদ সাইফউদ্দিন ১টি করে উইকেট তুলে নেন।

৯৪ রানের সহজ লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে, ৫ বল হাতে রেখে ৪ উইকেট হারিয়ে জয়ের বন্দরে পৌঁছে যায় স্বাগতিক বাংলাদেশ। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ অপরাজিত ৪৩ রানের ম্যাচ জয়ী ইনিংস খেলেন অধিনায়ক মাহমুদউল্লাহ। এছাড়া ওপেনার মোহাম্মদ নাঈম ২৯ রানের একটি কার্যকারী ইনিংস খেলেন। ব্ল্যাক ক্যাপসদের হয়ে সর্বাধিক ২টি উইকেট শিকার করেন এজাজ প্যাটেল।   

এই ম্যাচে জয়ী হয়ে পাঁচ ম্যাচের টি-টোয়েন্ট সিরিজে ৩-১ এগিয়ে রয়েছে টাইগাররা। আগামীকাল সিরিজের শেষ ম্যাচে মুখোমুখি হবে এই দুই দল। 

স্কোরবোর্ড:
নিউজিল্যান্ড – ৯৩/১০ (১৯.৩)
বাংলাদেশ – ৯৬/৪ (১৯.১)
ফলাফল – বাংলাদেশ ৬ উইকেটে জয়ী
প্লেয়ার অফ দি ম্যাচ – নাসুম আহমেদ

ফ্র্যাঞ্চাইজি ক্রিকেটের পাশাপাশি আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে আকর্ষণীয় টি-টোয়েন্টি লড়াই চলছে। ম্যাচগুলোর নিয়মিত আপডেটের জন্য, Baji –র সাথেই থাকুন!  

আরো ব্লগ